হিন্দির দাপটে বাংলা হারিয়ে যেতে বসেছে : মেজর হাফিজ

0

জিসাফো ডেস্কঃ বিএনপির ভাইস চেয়ারম্যান মেজর (অব.) হাফিজউদ্দিন আহম্মদ বীরবিক্রম বলেছেন, দেশে সাংস্কৃতিক আগ্রাসন চলছে। বাংলা ভাষার জন্য এ দেশের মানুষ রক্ত দিলেও এখন হিন্দির দাপটে সেই ভাষা হারিয়ে যেতে বসেছে। প্রতিবেশী দেশের অনেক টিভি চ্যানেল এ দেশে চললেও সেখানে আমাদের কোনো চ্যানেল দেখানো হয় না।

আজ দুপুরে জাতীয় প্রেস ক্লাবে আর্ন্তজাতিক মাতৃভাষা দিবস উপলক্ষে স্বাধীনতা ফোরাম আয়োজিত ‘বর্তমান প্রেক্ষাপটে মহান একুশের চেতনা’ শীর্ষক এক আলোচনাসভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এ কথা বলেন। স্বাধীনতা ফোরামের সভাপতি আবু নাসের মুহাম্মদ রহমাতুল্লাহর সভাপতিত্বে সভায় আরো বক্তব্য রাখেন, জাতীয় গণতান্ত্রিক পার্টির (জাগপা) সভাপতি শফিউল আলম প্রধান, বিএনপি চেয়ারপারসনের উপদেষ্টা অ্যাডভোকেট আহমেদ আযম খান, এ বি এম মোশাররফ হোসেন, মিয়া মোহাম্দ আনোয়ার, মাওলানা শোয়াইব হোসাইন, ফরিদ উদ্দিন আহমেদ, সাহিদুর রহমান তামান্না, এস এম সোহরাব হোসেন প্রমুখ। হাফিজ উদ্দিন আরো বলেন, ইউনিয়ন পরিষদের বিএনপির প্রার্থীদের অনেক স্থানে মনোনয়ন পত্র জমা দিতে দিচ্ছে না আওয়ামীলীগের সন্ত্রাসীরা। এ ব্যাপারে তিনি জনগণকে সোচ্চার হওয়ার আহবান জানান।

শহীদ মিনারকে জাতীয় জাতীয় প্রতীক হলেও সেখানে পেশাশক্তি দেখানো হচ্ছে অভিযোগ করে তিনি বলেন, দেশের বিভিন্ন স্থানে বিএনপি নেতাদের শহীদ মিনারে শ্রদ্ধা নিবেদন করতে দেয়া হয়নি। এটা হলো তাদের মুক্তিযুদ্ধের চেতনা।

দেশে আইনের শাসন ও গণতন্ত্র নেই বলেও অভিযোগ করেন এ বিএনপি নেতা। তিনি গতকাল দুজন সম্পাদককে নিয়ে প্রধানমন্ত্রীর দেয়া বক্তব্যের সমালোচনা করে বলেন, সম্পাদকদের বিরুদ্ধে কথা বলা তাদের পুরোনো অভ্যাস। বাকশালি অভ্যাস। সে সময় সকল সংবাদপত্র তারা বন্ধ করে দিয়েছিলেন। আবার বন্ধ করার পাঁয়তারা করছেন। এটা কি ভাষার চেতনা? একুশের চেতনা? এটাই কি মুক্তিযুদ্ধের চেতনা? হাফিজ উদ্দিন আরো বলেন, ১/১১ এর সময় সব সংবাদপত্রেই ওই সংবাদগুলো প্রকাশিত হয়েছে। একমাত্র মাহফুজ আনাম ভুল স্বীকার করেছেন। অন্যরা তো করেননি। গণমাধ্যমে এর চাইতে অনেক মারাত্মক কথা বলেছেন আওয়ামী লীগের নেতা শেখ ফজলুল করিম সেলিম, আব্দুল জলিল, ওবায়দুল কাদের ও অন্যরা। তাদের বিরুদ্ধে কোনো ব্যবস্থা নেয়ার কথা তো তিনি বললেন না।