হত্যা করে এভিডেন্স ধ্বংস করছে সরকার :ড. মোশাররফ

0

জিসাফো ডেস্কঃ রাজধানীর কল্যাণপুরে আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীর অভিযানে নিহত ব্যক্তিরা আসলেই জঙ্গি কি না, তা নিয়ে সংশয় প্রকাশ করে বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য ড. খন্দকার মোশাররফ হোসেন বলেছেন, কল্যাণপুরে আসলে কী ঘটনা ঘটেছে, তা আমি জানি না। তবে তারা জঙ্গি হলে সামনাসামনি গোলাগুলি করে মারা যাওয়ার কথা। কিন্তু ময়নাতদন্তে বলা হয়েছে, বেশির ভাগের মৃত্যু হয়েছে পেছন থেকে গুলি লেগে।

বৃহস্পতিবার বিকেলে জাতীয় প্রেসক্লাবে এক গোলটেবিল আলোচনায় খন্দকার মোশাররফ একথা বলেন। ‘সাপ্লিমেন্টারী ক্রেডিট কার্ড এবং তারেক রহমানের সম্প্রতি মামলার ক্ষেত্রে এর প্রভাব’ শীর্ষক এই আলোচনা সভার আয়োজন করে ‘ব্যারিস্টারস ফর চেইঞ্জ’ নামের একটি সংগঠন।

তিনি বলেন, জঙ্গিদের ধরার পর সরকার ক্রসফায়ারের নামে তাদের মেরে ফেলছে। কেনো সরকার এসব এভিডেন্স ধ্বংস করে ফেলছে? এর ফলে মানুষ মনে করে, জঙ্গিবাদ দমনে তারা আসলেই আন্তরিক কী না ?

সংগঠনের সভাপতি ব্যারিস্টার আনোয়ার হোসেনের সভাপতিত্বে এবং সাধারণ সম্পাদক ব্যারিস্টার জাকির হোসেনের সঞ্চলনায় বক্তব্য রাখে বিএনপি চেয়ারপারসনের উপদেষ্টা অ্যাডভোকেট জয়নাল আবেদিন, বিএনপির সহ আইন বিষয়ক সম্পাদক অ্যাডভোকেট নিতাই রায় চৌধুরী, গণশিক্ষা বিষয়ক সম্পাদক অ্যাডভোকেট সানাউল্লাহ মিয়া প্রমুখ।

খন্দকার মোশাররফ অভিযোগ করেন, সরকার প্রকৃত জঙ্গিদের না ধরে দোষারোপের রাজনীতি করছে। বিএনপি-জামায়াতকে দায়ী করছে। কিন্তু গুলশান হামলায় নিহত জঙ্গিদের একজন আওয়ামী লীগের নেতার ছেলে। বিদেশ থেকে ভিডিও বার্তা দিয়ে হুমকি দিয়েছে সাবেক সচিব শফিউর রহমানের ছেলে। শফিউর মহীউদ্দীন খান আলমগীরের সাথে জনতার মঞ্চ করেছিলেন। কল্যাণপুরে যারা মারা গেছে, তাদের একজন আওয়ামী লীগের নেতার ছেলে।

তিনি বলেন, যদি এরা বিএনপি বা জামায়াত নেতার ছেলে হতো, তাহলে আকাশ-পাতাল হয়ে যেত।

বিএনপিকে গ্রিক রূপকথার ফিনিক্স পাখি আখ্যা দিয়ে খন্দকার মোশাররফ বলেন, ষড়যন্ত্র করে বিএনপিকে দুর্বল বা নিশ্চিহ্ন করা যাবে না। ফিনিক্স পাখির মতো ধ্বংসস্তুপ থেকেও উঠে দাঁড়াবে। বিএনিপর সিনিয়র ভাইস চেয়ারম্যান তারেক রহমানকে সাজা দিয়ে সরকার যাতে নেতাকর্মীদের দৃষ্টি ভিন্ন দিকে ফেরাতে না পারে সে বিষয়ে সতর্ক থাকারও পরামর্শ দেন তিনি।

নিম্ন আদালত থেকে খালাস পাওয়া মামলায় তারেক রহমানকে সাজা দেয়াকে রাজনৈতিক প্রতিহিংসা এবং সরকারের ফ্যাসিবাদী চরিত্রের বহি:প্রকাশ হিসেবে অভিহিত করেন মোশাররফ।

বিএনপির জাতীয় ঐক্যে সরকার সাড়া না দেয়ায় এর সমালোচনা করে তিনি বলেন, জাতীয় ঐক্যের রাউন্ড ওয়ার্ক চলছে। আওয়ামী লীগ এবং ওই ঘরনার কোনো দল যদি তাতে সাড়া নাও দেয় তবে জাতীয় ঐক্য থেমে থাকবে না। জনগণকে সাথে নিয়ে জাতীয় ঐক্য ঠিকই গড়ে তোলা হবে।

Comments are closed.