স্লোগানে প্রকম্পিত আদালত প্রাঙ্গন, জনতার স্রোতে ভেঙ্গে গেল পুলিশের বাধ- এগিয়ে চললেন দেশনেত্রী বেগম খালেদা জিয়া

0

জিসাফো ডেস্কঃ রাজধানীর দারুসসালাম থানা এলাকায় নাশকতার অভিযোগে দায়ের করা মিথ্যা ৮ মামলায় আত্মসমর্পণ করে জামিন পেয়েছেন বিএনপি চেয়ারপারসন বেগম খালেদা জিয়া।বুধবার (১০ আগস্ট) ঢাকা মহানগর দায়রা জজ কামরুল হোসেন মোল্লার আদালতে আইনজীবীর মাধ্যমে তিনি আত্মসমর্পণ করে এ জামিনের আবেদন করেন। আদালত শুনানি শেষে তার জামিন আবেদন মঞ্জুর করেন।২০১৫ সালের প্রথম দিকে বিএনপির হরতাল অবরোধ চলাকালে রাজধানীর দারুসসালাম থানা এলাকায় নাশকতার অভিযোগে এ মামলাসমূহ করেন পুলিশ।

13876161_615249431991219_7009622266753981843_n 13939412_615259225323573_2649360890496172237_n

২০১৬ সালের প্রথম দিকে বিএনপির চেয়ারপারসন বেগম খালেদা জিয়াকে হুকুমের আসামি করে চার্জশিট (অভিযোগপত্র) দাখিল করেন পুলিশ। এ মামলাসমূহে দেশনেত্রী ‘কে পলাতক দেখিয়ে গ্রেফতারি পরোয়ানা জারির আবেদন করেন তদন্তকারী কর্মকর্তারা।মামলাসমূহে বেগম খালেদা জিয়া ছাড়াও দলের অনেক নেতাকর্মীকে আসামি করা হয়েছে।

এর আগে, ২০১৬ সালের ৫ এপ্রিল যাত্রাবাড়ী থানার হত্যা মামলা, বিশেষ ক্ষমতা আইনের মামলা, গ্যাটকো দুর্নীতিমামলা, গুলশানের নাশকতার মামলা ও রাষ্ট্রদ্রোহের অভিযোগে দায়ের করা মোট পাঁচ মামলায় বেগম খালেদা জিয়া আইনজীবীর মাধ্যমে বিচারিক আদালতে আত্মসমর্পণ করে জামিনের আবেদন করলে আদালত তা মঞ্জুর করেন।

13950793_313972762271040_670284365_o                                                    13876400_615259305323565_6135004918642634854_n 13891860_928978060564929_8529286715068281847_n

বিএনপি চেয়ারপারসন খালেদা জিয়ার আদালতে হাজিরাকে কেন্দ্র করে সকাল থেকেই এলাকাটির আশপাশে অবস্থান নিয়ে বিক্ষোভ করছেন দলটির নেতাকর্মীরা। বুধবার বেলা ১১টা ৩৫ মিনিটে খালেদা জিয়ার আদালতে উপস্থিত হওয়ার পর থেকে কোনো বাধাই যেন থামাতে পারছে না তাদের।সরেজমিনে দেখা গেছে, সকাল ১০টা থেকেই আদালতের আশপাশের এলাকায় বিক্ষোভ করেছেন বিএনপির নেতাকর্মীরা। তবে খালেদা জিয়ার আগমনের পর ছড়িয়ে ছিটিয়ে থাকা নেতাকর্মীরা একত্রিত হয়ে এখনো বিক্ষোভ মিছিল অব্যহত রেখেছেন। এদিকে রায় সাহেব বাজার মোড় থেকে মহানগর দায়রা জজ আদালত পর্যন্ত অবস্থান নিয়েছেন তারা। পুলিশ নেতাকর্মীদের সরাতে ব্যর্থ হওয়ায় হাজারো নেতাকর্মী এখন সড়কে অবস্থান নিয়েছেন।

ছাত্রদলের সংগ্রামী সভাপতি রাজিব ও সাধারন সম্পাদক আকরাম কে দেখা যায় শত শত নেতাকর্মীদের নিয়ে অবস্থান করতে। বৈরি আবহাওয়ার ভেতরেও রাজীব আকরাম গড়ে তোলেন এক দুর্ভেদ্য দেয়াল। দেশনেত্রীর নিরাপত্তা বলয়কে করে তোলেন অভেদ্য। বৃষ্টিতে সিক্ত এই সংগ্রামী নেতা দের দেখা যায় স্লোগানে মুখরিত। প্রকম্পিত হয় আদালত পাড়া। পুলিশ বাহিনী তাদের এই অভেদ্য প্রাচীরের সামনে হয়ে পড়ে অসহায়। এক অভূতপূর্ব ঐক্য, সংগ্রামী মনোভাব পরিলক্ষিত হয় ,ছাত্রদলের এক নব জাগরন ঘটে আজ ।

13936578_929303620532373_2060101367_n                                13988677_929303623865706_401266851_n                         13936816_929303640532371_2024537895_n

13989408_313988732269443_482502150_n                                                                                                                                         13987973_1235948266438753_911368918_o

‘খুনি হাসিনার গদিতে-আগুন জ্বালো একসাথে, খালেদা জিয়ার কিছু হলে জ্বলবে আগুন ঘরে ঘরে’ ইত্যাদি স্লোগানে আদালত প্রাঙ্গণ মুখর করে রেখেছেন নেতাকর্মীরা।আদালতে দেশনেত্রী বেগম খালেদা জিয়ার গাড়ি বহরে সাথে রাজপথের সংগ্রামী ছাত্রদলের নেতা ছাত্রদল কেন্দ্রীয় সংসদ সহ সভাপতি রাকিবুল ইসলাম রয়েল,, বারোটি মামলায় হাজিরা দিতে নিম্ন আদালতে উপস্থিত হন বিএনপি চেয়ারপারসন ও সাবেক প্রধানমন্ত্রী বেগম খালেদা জিয়া।বুধবার সকাল ১০টার দিকে বেগম খালেদা জিয়া তার গুলশানের বাসা ‘ফিরোজা ভবন’ থেকে আদালতের পথে রওনা দেন। বেলা পৌনে ১২টার দিকে তিনি আদালতে পৌঁছান,এই সময় ছাত্রদল সহ সভাপতি রাকিবুল ইসলাম রয়েল ও হাজার হাজার ছাত্রদলের নেতাকর্মী উপস্থিত ছিলেন।

তবে খালেদা জিয়া আদালতে প্রবেশের ২০ মিনিট আগেই এই রুট দিয়ে যানচলাচল বন্ধ করে দেয়া হয়েছে। দুপুর সোয়া ১২টায় এই প্রতিবেদন লেখা পর্যন্ত সড়কে নেতাকর্মীদের অবস্থান ও বিরতিহীন বিক্ষোভ মিছিলের কারণে এখনো যানচলাচল বন্ধ হয়ে যায়।