সাতক্ষীরায় জেল থেকে বেরিয়েই বিকেলে হামলা যুবলীগ নেতার

0

জিসাফো ডেস্কঃ জেল থেকে সকালে বেরিয়ে দুপুরে সাতক্ষীরার তালা উপজেলার খেশরার একটি ঘেরে সশস্ত্র হামলা চালিয়েছে স্থানীয় যুবলীগ নেতা আতাউর রহমান ও তার বাহিনী। এসময় ঘেরে থাকা জমির মালিকপক্ষের চার নারীকে বেপরোয়া মারপিট করে ঘের দখল নেয়া হয়।

আহতদের চিকিৎসাসেবা দেয়ার জন্য নিতেও বাধা দেয়া হয়। সোমবার দুপুরে এমন ঘটনা জানার পর পুলিশ আতাউর ও তার বাহিনীর বিরুদ্ধে সাঁড়াশি অভিযান শুরু করে। এরপর আহতদের চিকিৎসার জন্য সাতক্ষীরা সদর হাসপাতালে পাঠায়। আহতরা হলেন, লক্ষ্মী রানী গাইন, শিবানী গাইন, নমিতা গাইন ও সুলতা গাইন।

জমির মালিক সত্যরঞ্জন গাইন জানান, ৫০ বছরেরও বেশি সময় ধরে দখলে থাকা বিশ্বাসের চকে তাদের পৈত্রিক ৪৫ বিঘা জমিতে মাছের ঘের রয়েছে। এই জমিতে প্রবীর নিজের দাবি করলেও কোনো কাগজপত্র না থাকায় মামলায় বারবার হেরে যায়।

খুলনার সেই প্রবীরের ভাড়াটিয়া স্থানীয় যুবলীগ নেতা আতাউর রহমান আগেও এই ঘেরে হামলা চালিয়েছিল। এ নিয়ে মামলা হলে আতাউর তার সহযোগী কাসেম ও আমিরুল জেল খাটে।

তিনি আরো জানান, সকালে পরিবারের সদস্যদের নিয়ে মাছ ধরার সময় জামিনে বাড়ি এসেই আতাউর, মুড়োগাছা গ্রামের মেহেদী হাসান বাবু, খাজো রবীন, সুরঞ্জন, মিলন, আবুল কাসেম ও আমিরুলসহ ৫০/৬০ জন লাঠিসোটা ও ধারালো অস্ত্র নিয়ে তাদের ঘেরে হামলা করে।

খেসরা পুলিশ ফাঁড়ির উপ-পরিদর্শক (এসআই) মো. হাসানুর রহমান জানান, হামলাকারীদের ধাওয়া করে আহতদের চিকিৎসার জন্য সাতক্ষীরা সদর হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে। তার বিরুদ্ধে চারটি মামলা রয়েছে। সোমবার জেল থেকে বেরিয়ে এই হামলা চালিয়েছেন। তার বিরুদ্ধে আইনগত ব্যবস্থা নেয়া হবে।