সবাইকে নিয়ে ঐক্যের রাজনীতি করতে চান বেগম জিয়া

0

ঢাকা: এবারই প্রথম দেশের বাইরে ঈদ করলেন বিএনপি চেয়ারপারসন বেগম খালেদা জিয়া। বড় ছেলে তারেক রহমান ও পরিবারের অন্য সদস্যদের সঙ্গে ঈদ উদযাপন করে সন্ধ্যায় নেতাকর্মীদের সঙ্গে শুভেচ্ছা বিনিময় করতে যান তিনি। তবে নেতাকর্মীদের উশৃঙ্খলতায় ভালোভাবে সম্পন্ন হয়নি এ অনুষ্ঠান।

খালেদা জিয়া ও বিএনপির সিনিয়র ভাইস চেয়ারম্যান তারেক রহমানের সৌজন্যে ইলফোডের লেকভিউ ভেন্যুতে যুক্তরাজ্য বিএনপি এই অনুষ্ঠানের আয়োজন করে। এ অনুষ্ঠানে খালেদা জিয়া অভিযোগ করেন, ‘দুর্নীতি আর অপকর্মের বিচারের ভয়ে আওয়ামী লীগ ক্ষমতা ছাড়তে চায় না।’

তিনি বলেন, ‘আওয়ামী লীগ কিছুতেই ক্ষমতা ছাড়বে না। তিনি (শেখ হাসিনা) গদি ছাড়বেন না। কেন গদি ছাড়বেন না, এটা বলেন তো? এতো চুরি করেছে…আওয়ামী লীগের গং যারা আছে, ওই পরগাছাসহ সবগুলা যা করেছে…এই লুটপাট করে এরা পার পাবে না।’

তিনি বলেন, ‘বড় বড় প্রজেক্ট নেয়। এই প্রজেক্ট থেকে কমিশনগুলা খাওয়ার জন্যই প্রজেক্ট নিয়ে রাখে। কিন্তু সেগুলো কাজ শুরু করতে পারে না টাকার অভাবে।’

তিনি অভিযোগ করেন, ‘জনগণের ভোট ছাড়া কেবল পুলিশ দিয়ে ক্ষমতায় টিকে আছে বর্তমান সরকার।’ ক্ষমতা ছেড়ে নিরপেক্ষ সরকারের অধীনে অবিলম্বে জাতীয় নির্বাচন দিতে ক্ষমতাসীনদের প্রতি আহ্বান জানান বিএনপির চেয়ারপারসন।

বিএনপির জনসমর্থন অনেক বেড়েছে দাবি করেন খালেদা জিয়া বলেন, ‘আমরা শান্তি, উন্নয়ন ও ঐক্যের রাজনীতি করতে চাই সবাইকে নিয়ে। আওয়ামী লীগ ওয়ালাদের নিয়েও আমরা ঐক্যের রাজনীতি করতে চাই। তাদের মধ্যেও ভালো-মন্দ লোক আছে। তারাও দেশকে ভালোবাসে। তাদের সকলকে নিয়ে ঐক্যের রাজনীতি করলেই দেশটাকে সামনের দিকে এগিয়ে নেয়া যাবে।’