শিক্ষার্থীদের রক্তে রঞ্জিত রাজপথ

0

ঢাকা: বেসরকারি বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীদের ওপর আরোপিত ভ্যাট প্রত্যাহারের দাবিতে ইস্ট-ওয়েস্ট ইউনিভার্সিটির শিক্ষার্থীদের বিক্ষোভ ঠেকাতে রাবার বুলেট ছুঁড়েছে পুলিশ। এতে ইংরেজি বিভাগের এক শিক্ষক, বিশ্ববিদ্যালয়ের ডেপুটি রেজিস্ট্রারার মাশফিক আহমেদসহ বেশ কয়েকজন শিক্ষার্থী আহত হওয়ার খবর পাওয়া গেছে।

বুধবার দুপুর ২টা থেকেই এ বিক্ষোভ শুরু করে শিক্ষার্থীরা। এসময় রাস্তা অবরোধ করে বিক্ষোভ করায় ব্যাপক যানজটের সৃষ্টি হয়। এক পর্যায়ে শিক্ষার্থীদের রাস্তা থেকে সরিয়ে দিতে লাঠিচাচর্জ ও টিয়ার গ্যাস, রাবার বুলেট নিক্ষেপ করে পুলিশ। বেলা ৩টার দিকে শিক্ষার্থীরা রাস্তা থেকে সরে গেলেও অবস্থান নেয় রামপুরা ব্রিজের সামনে। আরো বেশি সংখ্যক পুলিশ এবং জলকামানও নিয়ে এসে শিক্ষার্থীদের হটিয়ে এলাকা ঘিরে রাখে। এতে বেশ কিছুক্ষণ পুরো এলাকায় উত্তপ্ত অবস্থা বিরাজ করে।

এরপর শিক্ষার্থীরা একত্রিত হয়ে সাড়ে ৫টার দিকে আবার বাড্ডা-মালীবাগ সড়ক অবরোধ করে। প্রায় ৪ ঘণ্টা অবরোধ করে রাখার পর রাত সারে ৯টার দিকে অবরোধ তুলে নেন তারা।

এ ব্যাপারে গুলশান জোনের সহকারী কমিশনার রফিকুল ইসলাম জানিয়েছেন, জনদুর্ভোগের কথা চিন্তা করে শিক্ষার্থীদের সঙ্গে কথা বলে আমরা অনুরোধ জানালে তারা অবরোধ প্রত্যাহার করে নেয়।

শিক্ষার্থীরা কোনো আশ্বাস পেয়েছে কিনা জানতে চাইলে তিনি  বলেন, ‘এটা সরকারের ব্যাপার। আমরা তাদের আশ্বাস দিতে পারি না। বড়জোর অনুরোধই করতে পারি।’

বাড্ডা থানার ওসি এমএ জলিল জানিয়েছেন, রাস্তা অবরোধ করে বিক্ষোভ করায় শিক্ষার্থীদের রাস্তা থেকে সরিয়ে দেয়া হয়েছে। তবে কোনো প্রকার লাঠি চার্জ কিংবা টিয়ার সেল নিক্ষেপের বিষয়টি অস্বীকার করেন তিনি।