যুক্তরাজ্য চায় বাংলাদেশে সুষ্ঠু ও অবাধ নির্বাচন অনুষ্ঠিত হোক

0

জিসাফো ডেস্কঃ বিএনপি চেয়ারপারসন খালেদা জিয়ার সঙ্গে বৈঠক করেছেন সফররত এশিয়া ও প্রশান্ত মহাসাগর বিষয়ক ব্রিটিশ পররাষ্ট্রমন্ত্রী অলোক শর্মা এমপি। বৈঠক শেষে বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর সাংবাদিকদের বলেন, যুক্তরাজ্য চায় বাংলাদেশে সুষ্ঠু ও অবাধ নির্বাচন অনুষ্ঠিত হোক। যা তারা অতীতিও চেয়েছিল।

বিকেল সাড়ে ৪টায় গুলশানে বিএনপির চেয়ারপারসন খালেদা জিয়ার রাজনৈতিক কার্যালয়ে এ বৈঠক শুরু হয়ে বিকেল ৫টা ২০ মিনিটে শেষ হয়। এ বৈঠকে বিএনপির মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর ও উপদেষ্টা রিয়াজ রহমান উপস্থিত ছিলেন। এছাড়াও বৃটিশমন্ত্রী অলক শর্মা সঙ্গে ঢাকায় নিযুক্ত বৃটিশ হাইকমিশনার ডেভিড অ্যাশলে উপস্থিত ছিলেন।

বৈঠকে খালেদা জিয়া দেশের রাজনীতি, গণতন্ত্র ও মানবাধিকার পরিস্থিতি তুলে ধরেন। দলীয় সূত্রের দাবি, এই বৈঠকটি ছিল বেশ গুরুত্বপূর্ণ। বিশেষ করে যুক্তরাজ্যের তেরেসা মে প্রশাসনের কাছে বিএনপির অবস্থান পরিষ্কারভাবে তুলে ধরা হয়েছে বৈঠকে। এছাড়াও বৈঠকে যুক্তরাজ্য সরকারের নতুন নতুন নীতি এবং যুক্তরাজ্য-বাংলাদেশ সম্পর্ক নিয়ে দুইপক্ষের মধ্যে আলোচনা হয়েছে।

অলক শর্মা তিনদিনের সফরে ০২ মার্চ (বৃহস্পতিবার) ঢাকায় এসেছেন। শুক্রবার সন্ধ্যায় বাংলাদেশের পররাষ্ট্রমন্ত্রী আবুল হাসান মাহমুদ আলীর সঙ্গে রাষ্ট্রীয় অতিথি ভবন পদ্মায় বৈঠক করেন অলক শর্মা।

সফর সম্পর্কে এক বিবৃতিতে তিনি বলেছেন, ‘মন্ত্রী হিসেবে আমি প্রথমবারের মতো বাংলাদেশ সফর করতে পেরে আনন্দিত। আমাদের দুই দেশের মধ্যে সম্পর্ক অভিন্ন ইতিহাস এবং জোরালো বন্ধনের ভিত্তির ওপর প্রতিষ্ঠিত। এই সম্পর্ক আরও জোরালো করা যায় কীভাবে সে বিষয়ে আলোচনা করতে চাই। বিশেষ করে সন্ত্রাস দমনে সহায়তা, শিক্ষা ক্ষেত্রে গভীর সংযোগ, মর্যাদাপূর্ণ শিভেনিং বৃত্তি কর্মসূচি এবং জোরালো দ্বিপক্ষীয় বাণিজ্য বিষয়ে আলোচনা করব।’

অলোক শর্মা ২০১০ সালে ব্রিটিশ পার্লামেন্টে সদস্য নির্বাচিত হন। তিনি ২০১৬ সালে এশিয়া ও প্রশান্ত মহাসাগরীয় অঞ্চল বিষয়ে মন্ত্রী নিযুক্ত হন। পার্লামেন্টের সদস্য হওয়ার পূর্বে ২০ বছর তিনি আন্তর্জাতিক আর্থিক খাতে কাজ করেছেন।

উল্লেখ্য, নিরাপত্তাজনিত সতর্কতা হিসেবে সাম্প্রতিককালে ব্রিটিশ মন্ত্রীদের বাংলাদেশ সফরের বিষয়ে কোনো পূর্ব ঘোষণা দেয়া হচ্ছে না। এসব অতিথিরা ঢাকায় পৌঁছার পর ব্রিটিশ হাইকমিশনের পক্ষ থেকে ঘোষণা দেয়া হয়।