বিচ্ছিন্নতাবাদী পিকেকের উপর তুরস্কের বিমান হামলা-নিহত ৫৫

0

জি সা ফো নিউজ ডেস্কঃ ইরাকের উত্তরাঞ্চলে কুর্দি বিদ্রোহীদের শিবিরগুলোতে শনিবার দিবাগত রাতে ফের বিমান হামলা চালিয়েছে তুর্কি যুদ্ধবিমানগুলো। ওই হামলায় ৫৫ বিদ্রোহী নিহত হয়েছেন। তুরস্কের নিরাপত্তা সূত্রের বরাত দিয়ে এ খবর জানিয়েছে রয়টার্স।

সূত্রটি জানিয়েছে, শনিবার রাতে তুরস্কের দক্ষিণ পূর্বাঞ্চলীয় দিয়ারবাহির ঘাঁটি থেকে উড়ে গিয়ে কুর্দি ওয়ার্কার্স পার্টি(পিকেকে) শিবিরগুলোতে হামলা চালিয়েছে জঙ্গি বিমানগুলো। হামলা শেষে কোনোরকম ক্ষয়ক্ষতি ছাড়াই সেগুলো নিরাপদে ঘাঁটিতে ফিরে এসেছে।

গত জুলাই মাসে দু পক্ষের মধ্যে স্বাক্ষরিত চুক্তিটি ভেঙে যাওয়ার পর থেকে তুর্কি সরকার ও কুর্দি বিদ্রোহীদের মধ্যে হামলা ও পাল্টা হামলা অব্যাহত রয়েছে। দেশটিতে আগামী নভেম্বরে অনুষ্ঠেয় জাতীয় নির্বাচনকে কেন্দ্র করে বিদ্রোহীদের দমনে জোর দিয়েছে আঙ্কারা সরকার।

তুর্কি নিরাপত্তা বাহিনী ইরাকের পাহাড়ি অঞ্চলে অবস্থিত পিকেকে’র শিবিরগুলো লক্ষ্য করে বার বার বোমা হামলা চালিয়ে যাচ্ছে।  গত দু দশকের মধ্যে কুর্দি বিদ্রোহীদের সঙ্গে এটিই তুরস্কের সবচেয়ে বড় ধরনের সংঘর্ষে জড়িয়ে পড়ার ঘটনা। অন্যদিকে সিরিয়া সীমান্তে তারা একই সঙ্গে আসাদ বাহিনী এবং জঙ্গি গোষ্ঠী ইসলামিক স্টেটেরর জঙ্গিদের মোকাবেলা করছে।

১৯৮৪ সালে থেকে তুরস্কের বিরুদ্ধে বিচ্ছিন্নতাবাদী আন্দোলন চালিয়ে যাচ্ছে পিকেকে বিদ্রোহীরা। দু পক্ষের সংঘাতে এ পর্যন্ত ৪০ হাজারের বেশি মানুষ নিহত হয়েছে।
এদিকে তুর্কি প্রেসিডেন্ট রিসেপ তায়েপ এরদোগান বিদ্রোহীদের কোনোরকম ছাড় দিতে রাজি নন। সম্প্রতি এক বিবৃতিতে তিনি কুর্দিদের ‘একজন সন্ত্রাসী বেঁচে থাকতেও’ লড়াই বন্ধ হবে না বলে প্রতিজ্ঞা করেছেন।