বিএনপির নেতাকর্মী ও স্বচ্ছল প্রতিটি মানুষ অতিদ্রুত বন্যার্তদের পাশে দাঁড়ান- দেশনেত্রী বেগম খালেদা জিয়া

0
  • User Ratings (0 Votes) 0
    Your Rating:
Summary

“দেশের বন্যা পরিস্থিতি এখন মারাত্মক রূপ ধারণ করেছে। বাংলাদেশের সীমানার ভেতরে তিস্তাসহ উত্তরাঞ্চলের বেশি কয়েকটি নদীর দুই তীরের বিস্তীর্ণ এলাকায় ফসল, বসতবাড়ি, যোগাযোগ ব্যবস্থা ও মানুষের জীবন-জীবিকা সম্পূর্ণ বিপর্যস্ত হয়ে পড়েছে। বন্যা উপদ্রুত মানুষজন ঘর-বাড়ি-জোত-জমি হারিয়ে দিশেহারা হয়ে পড়েছে। আমি সারাদেশে বিএনপির সকল পর্যায়ের নেতাকর্মী ও স্বচ্ছল মানুষকে অতিদ্রুত বন্যাদুর্গত মানুষের পাশে দাঁড়ানোর জন্য উদাত্ত আহবান জানাচ্ছি।” - দেশনেত্রী বেগম খালেদা জিয়া

Awesome

বিএনপির নেতাকর্মী ও স্বচ্ছল প্রতিটি মানুষ অতিদ্রুত বন্যার্তদের পাশে দাঁড়ান- দেশনেত্রী বেগম খালেদা জিয়া

জিসাফো ডেস্ক: দেশের উত্তরাঞ্চলে বন্যা পরিস্থিতির চরম অবনতিতে উদ্বেগ প্রকাশ করে বন্যা দুর্গতদের পাশে দাঁড়ানোর জন্য বিএনপির সকল পর্যায়ের নেতাকর্মীকে নির্দেশ এবং দেশের প্রতিটি স্বচ্ছল মানুষের প্রতি আহবান জানিয়েছেন বিএনপির চেয়ারপারসন ও সাবেক প্রধানমন্ত্রী দেশনেত্রী বেগম খালেদা জিয়া।

চিকিৎসার্থে যুক্তরায্যে অবস্থানরত বিএনপি চেয়ারপারসন দেশনেত্রী বেগম খালেদা জিয়া গতকাল রোববার এক বিবৃতিতে বলেন,  “দেশের বন্যা পরিস্থিতি এখন মারাত্মক রূপ ধারণ করেছে। বাংলাদেশের সীমানার ভেতরে তিস্তাসহ উত্তরাঞ্চলের বেশি কয়েকটি নদীর দুই তীরের বিস্তীর্ণ এলাকায় ফসল, বসতবাড়ি, যোগাযোগ ব্যবস্থা ও মানুষের জীবন-জীবিকা সম্পূর্ণ বিপর্যস্ত হয়ে পড়েছে। বন্যা উপদ্রুত মানুষজন ঘর-বাড়ি-জোত-জমি হারিয়ে দিশেহারা হয়ে পড়েছে।  আমি সারাদেশে বিএনপির সকল পর্যায়ের নেতাকর্মী ও স্বচ্ছল মানুষকে অতিদ্রুত বন্যাদুর্গত মানুষের পাশে দাঁড়ানোর জন্য উদাত্ত আহবান জানাচ্ছি।”

বিএনপির সিনিয়র যুগ্ম মহাসচিব রুহুল কবির রিজভী স্বাক্ষরিত বিবৃতিতে দেশনেত্রী বেগম খালেদা জিয়া বন্যা পরিস্থিতি মোকাবিলায় সরকারের কার্যকর কোনো উদ্যোগ নেই অভিযোগ করে বলেন, বন্যাকবলিত এলাকায় কোনো জরুরি ত্রাণ তৎপরতা নেই। বন্যাদুর্গত মানুষকে নিরাপদে উঁচু জায়গায় সরিয়ে নেয়ার কথা বলা হলেও কার্যকর কোনো ব্যবস্থা এখনো পর্যন্ত পরিলক্ষিত হয়নি। সরকারের লিপ সার্ভিস ছাড়া এই ভয়াবহ বন্যা মোকাবেলায় বাস্তব কোনো সার্ভিস নেই।

দেশনেত্রী বেগম খালেদা জিয়া বলেন, জনগণকে উপেক্ষা করে ক্ষমতায় থাকাটাই বর্তমান সরকারের যেহেতু একমাত্র উদ্দেশ্য, তাই জনদুর্ভোগকে তারা কখনোই আমলে নেয় না। অতিসম্প্রতি হাওড়ে বন্যা ও পাহাড় ধ্বসে প্রাকৃতিক বিপর্যয়ে অসংখ্য মানুষের প্রাণহানি হওয়ার পরও পরবর্তী দুর্যোগ মোকাবিলায় আশ্রয়হীন, ক্ষুধার্ত মানুষকে সহায়তা দিতে সরকার তাৎক্ষণিক প্রস্তুতি গ্রহণে কোনো ধরনের মনোযোগ দেয়নি।