পুলিশ ও আওয়ামী ক্যাডারদের গ্রেফতার বানিজ্যে অসহায় সাধারণ মানুষ

0

জিসাফো ডেস্কঃ পাবনায় সাঁথিয়া উপজেলার করমজা গ্রামের সাধারণ মানুষ ও বিরোধী পক্ষের নেতাকর্মীদের স্বজনদের মূহুর্ত কাটে এখন চরম ভয়, হতাশা আর আতঙ্কের ভিতর দিয়ে। এ যেন মঘের মুল্লুকে বসবাস, দেখার যেন কেউ নেই, রাত হলেই নেমে আসে পুলিশী অভিযান এর নামে সাধারণ মানুষ এর বাড়ি বাড়ি হানা দিয়ে আটক করার উৎসব।

এ কাজে স্থানীয় আওয়ামী নেতাদের রয়েছে সবচেয়ে বেশি ভুমিকা, বিনিময়ে পুলিশের সাথে ভাগাভাগি করে হাতিয়ে নিচ্ছে মোটা অংকের টাকা।

আটকের পর দেশব্যাপী আলোচিত সেই ২৫ /০৮ /২০১৫ইং (3 Murder) অর্থাৎ ৩ জন ছেলে ধরা সন্দেহে গনপিটুনিতে নিহত হওয়ার ঘটনায় ফাঁসানোর ভয় দেখিয়ে, কারও কাছে থেকে ৫ হাজার, ১০ হাজার এমনকি স্বচ্ছল হলে ২০ /৫০ হাজার টাকা আদায় করার অভিযোগ ও রয়েছে। নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক একজন বলেন তদন্ত কর্মকর্তা আবুল কাসেম এই অপকর্মের মূল হোতা, খোঁজ নিয়ে জানা গেছে, আলতাফ সরদার, আলম সরদার, ইয়াকুব খান, রতন খান, হাফিজ মোল্লা, ঝাড়ু ব্যাবসায়ী আঃ সাত্তার এর মেয়ে জামাই আদ্বুল আলী, তাঁত ব্যবসায়ী আবদুল মুন্সী পশ্চিম করমজা, সহ অসংখ্য সাধারণ মানুষ এই হয়রানির শিকার, তবে পুলিশ ও প্রভাবশালী মহলের ভয়ে কেউ কেউ মুখ খুলতে সাহস পাচ্ছেন না।

তারা মানবধিকার সংস্থা সহ সংশ্লিষ্ট মহলের সহযোগিতা কামনা করেছেন।