গুলশান অফিসের দরজা খুলে দিতে হবে : খালেদা জিয়াকে শফিক রেহমান

0

জিসাফো ডেস্কঃ বিশিষ্ট মুক্তিযোদ্ধা গণস্বাস্থ্য কেন্দ্রের ডা. জাফরুল্লাহ প্রথম তার বক্তৃতায় প্রসঙ্গটি তুলেছিলেন।তার দাবি ছিল বর্মান সরকারের আমলে যারা গুমখুনের শিকার হয়েছে, কারাগারে রয়েছে -গুলমান অফিসে খালেদা জিয়ার তাদের আত্মীয় স্বজনকে ডেকে যেনো কথা বলেন,সান্তনা দেন।এজন্য প্রতিদিন সকাল ১০ টা থেকে বিকাল ৫ টা পযর্ন্ত সময়ও বেধে দিতে বলেছিলেন তিনি।

ইঞ্জিনিয়ার্স ইন্সস্টিটিউশনে শুক্রবার সকালে মাহমুদুর রহমানের কারাবন্ধীত্বের ও আমার দেশ বন্ধের এক হাজার দিনের আলোচনায় অংশ নিয়ে তিনি এ প্রস্তাব দেন। সঙ্গে ছিল খালেদা জিয়াকে সারা দেশ ঘুরে বেড়াত হবে।জনসংযোগ করতে হবে ফ্যাসিবাদী সরকারের বিরুদ্ধে। কিন্তু একই অনুষ্ঠানে পরে বক্তৃতা করতে দাড়িয়ে শফিক রেহমান বললেন, খালেদা জিয়ার স্বাস্থ্যের যে অবস্থা তাতে এ মুহুর্তে তার পক্ষে সারা দেশ ঘুরে বেড়ানো সম্ভব না হতে পারে। তবে সারাদিন তিনি গুলশান অফিসে বসে সবর্স্তরের মানুষের সাথে রুটিন করে কথা বলতে পারেন।

এ জন্য তাকে যে কাজটি করতে হবে তার গুলশান অফিসটি এখন যেভাবে পরিচালিত হয়, তাতে পরিবর্তন আনতে হবে।অফিসের দরজা সবার জন্য উন্মুক্ত করে দিতে হবে।