কিশোরগঞ্জ বন্যা কবলিত হাওড় অঞ্চল পরিদর্শন ও বিএনপির ত্রান বিতরনে সেলিমা রহমান

0

বিএনপির ভাইস চেয়ারম্যান সেলিমা রহমান কিশোরগঞ্জ হাওড়ে দূর্গত এলাকা পরিদর্শন করে বলেছেন, হাওড়ে লক্ষ লক্ষ হেক্টর জমির ফসল হারিয়ে মানুষের হাহাকার অবস্থা। বছরের একমাত্র ফসল হারিয়ে এলাকার মানুষের মাথায় হাত। ঋণের চাপে তারা জর্জরিত। তিনি বলেন,এ অবস্থা থেকে মানুষকে রক্ষা করতে সরকার ও প্রশাসনকেই দায়িত্ব নিতে হবে।

তিনি আজ কিশোরগঞ্জে রাজনৈতিক সফরে এসে দলের কর্মীসভা শেষে জেলার হাওড়ে উজানের পানির ঢ্ল,অকাল বৃস্টি এবং বাঁধ ভেঙ্গে ফসল ডুবে যাওয়া এলাকা পরিদর্শন করেন। জেলার চামড়া বন্দর থেকে ট্রলার যোগে ইটনা উপজেলা সংলগ্ন হাওড়ের বিস্তির্ন এলাকার দূর্দশা দেখেন এবং পরী বাড়ী ষাটে নেমে ক্ষতিগ্রস্ত মানুষের সাথে কথা বলেন এবং ত্রাণ সামিগ্রী বিতরণ করেন। এসময় এলাকার ক্ষতিগ্রস্ত মানুষ তাদের দূর্দশার কথা বলতে গিয়ে কান্নায় ভেঙ্গে পড়েন। সেলিমা রহমান তাদের শান্তনা দেন।

পরী ঘাটে দূর্গত মানুষদের উদ্দেশ্যে বক্তৃতাকালে দেশনেত্রী বেগম খালেদা জিয়ার পক্ষ থেকে সহমর্মিতা প্রকাশ করে বলেন, বিপদের দিনে ধৈর্য্য ধারন করে পরিস্থিতি মোকাবেলা করুন। বিএনপি ও বেগম জিয়া আপনাদের সাথে আছেন। তিনি সরকার ও প্রশাসনের প্রতি ক্ষতিগ্রস্ত মানুষের পূনর্বাসনের দায়ীত্ব নেয়ার আহ্বান জানান। তিনি ক্ষতিগ্রস্ত এলাকাকে দূর্গত এলাকা ঘোষনার দাবি জানিয়ে আগামী ফসল না ওঠা পর্যন্ত সকলকে ত্রান সামগ্রী প্রদান, মাছ ধরার জন্য আগামী এক বছর জলাশয় উন্মুক্ত করা, সূদসহ কৃষি ঋণ মওকুফ, সূদবিহীন নতুন কৃষি ঋণ প্রদান,বিনামূল্যে কৃষি উপকরন বিতরণ, এনজিও ও মহাজনী ঋণের বিষয়ে ব্যাবস্থা নেয়া, পানি নেমে যাবার পর বন্যা নিয়ন্ত্রন বাধ নির্মান, এবছর বাধ সংস্কার না করে টাকা লুটপাটের জন্য দায়ী ব্যাক্তিদের বিরুদ্ধে ব্যাবস্থা নেয়ার দাবী জানান।

দূর্গত এলাকা পরিদর্শন কালে বিএনপি চেয়ারপার্সনের উপদেস্টা এড.ফজলুর রহমান,সাংগঠনিক সম্পাদক সৈয়দ এমরান সালেহ্ প্রিন্স,জেলা বিএনপির সাধারন সম্পাদক মাজহারুল ইসলাম,সাংগঠনিক সম্পাদক হাজী ইসরাইল মিয়া,আমিনুল ইসলাম আশফাক, নাজমুল আলম জাহাঙ্গীরসহ জেলা,উপজেলা বিএনপি ও অঙ্গ সংগঠনের নেতৃবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন।

সন্ধ্যায় বিএনপির ভাইস চেয়ারম্যান সেলিমা রহমানশ কেন্দ্রীয় নেতৃবৃন্দ কিশোরগঞ্জ প্রেসক্লাবে স্থানীয় সাংবাদিকদের সাথে সৌজন্য সাক্ষাত করেন, তারা বিভিন্ন বিষয় নিয়ে সাংবাদিকদের সাথে মতবিনিময় করেন।

Published By: Zubair Tanvir Siddique