কঠোর নিরাপত্তা চায় অস্ট্রেলিয়া

0

খেলাধুলা

রবিবার, ২৭-সেপ্টেম্বর-২০১৫ ১৮:৩২ অপরাহ্ন

কঠোর নিরাপত্তা চায় অস্ট্রেলিয়া

স্পোর্টস করেসপন্ডেন্ট, বাংলামেইল২৪ডটকম

অস্ট্রেলিয়া আসবে আশাবাদি বিসিবি সভাপতি

ঢাকা: বাংলাদেশের বিপক্ষে দুই ম্যাচের টেস্ট সিরিজ খেলতে আসার আগে নিরাপত্তা ব্যবস্থা আরও জোরদার করতে ঢাকা সফরে এসেছে অস্ট্রেলিয়া ক্রিকেট দলের নিরাপত্তা প্রধান শন ক্যারল। রোববার  সকাল সাড়ে ১০টায় ঢাকায় পৌঁছে দুপুরে অস্ট্রেলিয়ান হাই কমিশনে বিসিবি সভাপতি নাজমুল হাসান পাপনের সঙ্গে এক জরুরী বৈঠকে বসেন তিনি। পরে আলোচনা শেষে বিসিবি জিানিয়েছেন, অস্ট্রেলিয়া দলের বাংলাদেশ সফরের ব্যাপারে আশাবাদী তারা।

অস্ট্রেলিয়ার নাগরিকদের জন্য বাংলাদেশকে ‘অনিরাপদ’ হিসেবে উল্লেখ করে দেশটির পররাষ্ট্র ও বাণিজ্য বিষয়ক অধিদপ্তর (ডিএফএটি) গত শুক্রবার যে প্রতিবেদন প্রকাশ করেছিল, তারই ফলশ্রুতিতে বাংলাদেশ সফর পিছিয়ে দেয় ক্রিকেট অস্ট্রেলিয়া। সোমবার বাংলাদেশের উদ্দেশে রওনা দেয়ার কথা ছিল স্টিভেন স্মিথের নেতৃত্বাধীন অস্ট্রেলীয় ক্রিকেট দলের।

বাংলাদেশের নিরাপত্তা পরিস্থিতি খতিয়ে  দেখতে ক্রিকেট অস্ট্রেলিয়ার নিরাপত্তা প্রধান শন ক্যারল বর্তমানে ঢাকায় অবস্থান করছেন। বাংলাদেশে পা রেখেই তিনি সরাসরি অস্ট্রেলীয় দূতাবাসে চলে যান।  সেখানে বিসিবি সভাপতি নাজমুল হাসানের সঙ্গে এক বৈঠকে মিলিত হন ক্যারল। বিসিবি সভাপতির সঙ্গে ছিলেন ক্রিকেট বোর্ডের অন্যতম পরিচালক মাহবুব আনাম এবং প্রধান নির্বাহী নিজামউদ্দিন চৌধুরী সুজন।

বৈঠকের ব্যাপারে সাংবাদিকদের সঙ্গে আলাপকালে বিসিবি সভাপতি বলেন, ‘আপাতত অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে সিরিজ পেছানোর সম্ভাবনা একেবারেই নেই। টিম অস্ট্রেলিয়ার নিরাপত্তার বিষয়টি দেখতেই শন ক্যারল ঢাকায় এসেছেন। আসন্ন এই সফরের ব্যাপারে আমরা আশাবাদী। তাদের নিরাপত্তা দলের সঙ্গে আমাদের আলাপ হয়েছে। বাংলাদেশের নিরাপত্তা পরিস্থিতি বিশ্লেষণ করে একটি প্রতিবেদন অস্ট্রেলিয়া সরকারের কাছে জমা দেবেন তারা। সেই প্রতিবেদনের ওপর ভিত্তি করেই জানা যাবে, অস্ট্রেলীয় ক্রিকেট দল কবে বাংলাদেশ সফরে আসবে।’

এদিকে বিকেলে শন ক্যারল জাতীয় নিরাপত্তা গোয়েন্দা সংস্থা (এনএসআই) ও সামরিক গোয়েন্দা সংস্থার (ডিজিএফআই) কর্মকর্তাদের সঙ্গে এক বৈঠকে মিলিত হন। বিসিবি সূত্রে জানা গেছে, সোমবার তারা বৈঠক করবেন স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খান কামাল এবং পুলিশের উর্ধ্বতন কর্মকর্তাদের সঙ্গে।

অস্ট্রেলিয়ার আসন্ন এই সিরিজ নিয়ে এর আগেও একবার বাংলাদেশ সফর করে অস্ট্রেলিয়ার নিরাপত্তা পর্যবেক্ষক দল এবং তাদের প্রতিবেদনের ওপর ভিত্তি করেই সিরিজের সূচি নির্ধারিত হয়। পূর্ব নির্ধারিত সূচি অনুযায়ী ৩-৫ অক্টোবর ফতুল্লায় একটি তিন দিনের প্রস্তুতি ম্যাচসহ ৯-১৩ অক্টোবর চট্টগ্রামে প্রথম টেস্ট এবং ১৭-২১ অক্টোবর ঢাকায় দ্বিতীয় ও শেষ টেস্ট খেলার সূচি চূড়ান্ত করা হয়েছিল।