আমলারা নিজেদেরকে কুলীন মনে করে: শিক্ষক নেতৃবৃন্দ

0

ঢাকা: শিক্ষকদের দাবি বাস্তবায়নের ক্ষেত্রে আমলারা বাধা প্রতিবন্ধকতা সৃষ্টি করছে বলে অভিযোগ করেছেন আন্দোলনরত বিশ্ববিদ্যালয় শিক্ষক সমিতি ফেডারেশনের সভাপতি অধ্যাপক ফরিদ আহমেদ।

ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ে আওয়ামী লীগ সমর্থক শিক্ষকদের এই নেতা বলেন, প্রধানমন্ত্রীর সঙ্গে যদি আমরা মাত্র ৫ মিনিটও বসি, তাহলেই এই সমস্যার সমাধান করা সম্ভব।

সোমবার বাংলাদেশের ৩৭টি পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয়ে একযোগে শিক্ষকদের কর্মবিরতি শুরুর পর গণমাধ্যমকে একথা বলেন অধ্যাপক ফরিদ।

তিনি বলেন, তারা (আমলা) এখন আমাদের ৯টা-৫টা ডিউটি করার কথা বলছে। আমরা তো কেরানী না যে নয়টা-পাঁচটা ডিউটি করব। আমাদের অফিস তো ২৪ ঘণ্টা।

তিনি অভিযোগ করে বলেন, আমাদেরকে নয় মাস ধরে রাস্তায় রাস্তায় ঘুরিয়ে এ অবস্থায় নিয়ে এসেছে। আমলারা ইচ্ছা করেই এ পর্যায়ে নিয়ে এসেছে। ওরা ভাবছে ওরা কুলীন লোক, ওদের পর্যায়ে কাউকে দেওয়া যাবে না।

গত ২ জানুয়ারি থেকে শিক্ষকরা ক্লাস-পরীক্ষা বর্জনের দিকে যেতে চেয়েছিলেন জানিয়ে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় শিক্ষক সমিতির সভাপতি ফরিদ বলেন, “সামনে কেবিনেট মিটিং থাকায় আমরা তখন সময় নিয়েছিলাম।

কিন্তু এখন দেখছি, কেবিনেট মিটিংয়ের পর প্রধানমন্ত্রী সেই আমলাদের সঙ্গেই বৈঠক করলেন। বৈঠকে প্রধানমন্ত্রীকে ভুলভাবে বোঝানো হয়েছে।

অধ্যাপক ফরিদ বলেন, ফেডারেশনের ডাকে দেশের সব পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয়ে ক্লাস-পরীক্ষা বন্ধ রয়েছে। শিক্ষকরা প্রশাসনিক কোনো দায়িত্বও পালন করছেন না।