আওয়ামী লীগ উগ্রবাদী রাজনৈতিক দল

0

জিসাফো ডেস্কঃবিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য ব্যরিস্টার মওদুদ আহমদ বলেছেন, প্রধান বিচারপতি সিনিয়র আইনজীবীদের সঙ্গে পরামর্শ করে ভাস্কর্য সরানোর সিদ্ধান্ত নিয়েছেন। তাদের সিদ্ধান্তেই ভাস্কর্যটি সরানো হয়েছে। এখানে সরকারের কোনো কৃতিত্ব নেই।

শুক্রবার জাতীয় প্রেসক্লাবে বিএনপির ভাইস-চেয়ারম্যান বরকত উল্লাহ বুলুর মুক্তির দাবিতে এক প্রতিবাদ সমাবেশে তিনি এসব কথা বলেন। প্রতিবাদ সমাবেশের আয়োজন করে বরকত উল্লাহ বুলু মুক্তি পরিষদ।বিএনপি চেয়ারপারসনের কার্যালেয় তাল্লাশি করে সরকার নতুন করে ‘ফ্যসিবাদীর’ পরিচয় দিয়েছে উল্লেখ করে মওদুদ আহমেদ বলেছেন, আওয়ামী লীগ এখন বেপরোয়া হয়ে উঠেছে। তারা প্রতিহিংসার রাজনীতি করে। যে কারণে তারা (আওয়ামী লীগ) নারায়ণগঞ্জের শিক্ষক শ্যামল ক্যান্তিকে মিথ্যা মামলায় কারাগারে পাঠিয়েছে। আওয়ামী লীগ উগ্রবাদী রাজনৈতিক দল। তারা গণতন্ত্রে বিশ্বাস করে না। দেশে গণতন্ত্র ফিরিয়ে আনতে আন্দোলনের বিকল্প নেই।

বিএনপিকে সভা-সমাবেশ করতে অনুমতি দিচ্ছে না সরকার। এটা তাদের দুর্বলতার পরিচয় বলেও মন্তব্য করেন তিনি।

নির্বাচন কমিশনের রোডম্যাপ সম্পর্কে মওদুদ বলেন, নির্বাচন কমিশন একটি সরকারের তল্পীবাহক। তারা ২০১৪ সালের মতো পুনরায় একক নির্বাচন করতে চায়। সরকার নির্বাচন কমিশন, দুর্নীতি দমন কমিশনসহ সব কমিশন নিয়ন্ত্রণ করছে।

বরকত উল্লাহ বুলু মুক্তি পরিষদের উপদেষ্টা আকবর হোসেন ভূইয়া নান্টুর সভাপতিত্বে এ সময় আরও বক্তব্য রাখেন বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য গয়েশ্বর চন্দ্র রায়, ঢাকা মহানগর দক্ষিণের সভাপতি হাবিবুন নবী সোহেল, স্বেচ্ছাসেবক দলের সভাপতি শফিউল বারী বাবু, সাধারণ সম্পাদক আব্দুল কাদের ভূইয়া জুয়েল প্রমুখ।